করোনাভাইরাসের (কোভিড–১৯) মহামারি মোকাবিলায় চিকিৎসা সরঞ্জাম দিয়ে সহযোগিতার প্রস্তাব দেওয়ায় বাংলাদেশকে ধন্যবাদ জানিয়েছে ভারত। একই সঙ্গে দেশটি আশাবাদ ব্যক্ত করেছে, বাংলাদেশ-ভারত একসঙ্গে এই মহামারি জয় করবে।

ঢাকায় ভারতীয় হাইকমিশন বৃহস্পতিবার এক টুইট বার্তায় বাংলাদেশকে এই ধন্যবাদ জানায়। এতে বলা হয়, ‘ভারতের সঙ্গে বাংলাদেশ সংহতি প্রকাশ করায় এবং করোনার এই সংকটের সময় ভারতের প্রতি সহযোগিতার হাত বাড়ানোর বার্তা দেওয়ায় ঢাকাকে ধন্যবাদ।’

বাংলাদেশ ভারতকে জরুরি ভিত্তিতে চিকিৎসা সরঞ্জাম সরবরাহের প্রস্তাব দিয়েছে উল্লেখ করে টুইটে বলা হয়, ‘আমরা আত্মবিশ্বাসী, ভারত-বাংলাদেশ একসঙ্গে কোভিড-১৯ মহামারি জয় করবে।’

এর আগে এক খবরে বাসস জানায়, বাংলাদেশ কোভিড-১৯ মহামারি মোকাবিলায় ভারতের জনগণের জন্য জরুরি ওষুধ ও চিকিৎসা সরঞ্জাম সরবরাহের প্রস্তাব দিয়েছে।

বৃহস্পতিবার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, প্রায় ১০ হাজার ভায়ালস ইনজেকটেবল অ্যান্টি-ভাইরালসহ বাংলাদেশ জরুরি ভিত্তিতে ভারতকে ওরাল অ্যান্টি-ভাইরাল, ৩০ হাজার পিপিই কিটস এবং কয়েক হাজার জিঙ্ক, ক্যালসিয়াম, ভিটামিন সি এবং অন্যান্য ওষুধ ও চিকিৎসা সরঞ্জাম পাঠানোর প্রস্তাব দিয়েছে।

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়, বাংলাদেশ নিকটতম প্রতিবেশী রাষ্ট্র ভারতের সঙ্গে সংহতি প্রকাশ করছে এবং ঢাকা চলমান ভয়াবহ করোনা মহামারি থেকে ভারতীয়দের জীবন রক্ষায় সম্ভাব্য সব ধরনের সহায়তা দিতে প্রস্তুত রয়েছে।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, ‘বাংলাদেশ সরকার কোভিড মহামারিতে ভারতে সাম্প্রতিক প্রাণহানির জন্য আন্তরিকভাবে গভীর শোক, দুঃখ প্রকাশ করছে এবং সহানুভূতি জানাচ্ছে।’ বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়, ভারতের জনগণের এই দুঃসময়ে তাদের দুর্ভোগ লাঘবের জন্য বাংলাদেশি জনগণ প্রার্থনা করছে। প্রয়োজনে, বাংলাদেশ ভারতকে আরও সহায়তা দিতে ইচ্ছুক।