নবায়নযোগ্য জ্বালানির যোগান বাড়াতে ফেনীর সোনাগাজীতে ১০০ মেগাওয়াট ক্ষমতার একটি সৌর বিদ্যুৎকেন্দ্র স্থাপনের কাজে হাত দিয়েছে সরকার।

ইলেকট্রিসিটি জেনারেশন কোম্পানি অব বাংলাদেশ (ইজিসিবি) ও জাপানের মারুবেনি কর্পোরেশন যৌথভাবে এই প্রকল্প বাস্তবায়ন করবে।

 

বৃহস্পতিবার এক ভার্চুয়াল অনুষ্ঠানে বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদের উপস্থিতিতে এ বিষয়ে প্রাথমিক সমঝোতা চুক্তি স্বাক্ষর করেন দুই প্রতিষ্ঠানের প্রতিনিধিরা।

 

ইজিসিবির পক্ষে কোম্পানির সচিব কাজী নজরুল ইসলাম এবং মারুবেনির পক্ষে প্রতিষ্ঠানটির মহাব্যবস্থাপক হিরুকি গুটু সমঝোতাপত্রে সই করেন।

 

অনুষ্ঠানে বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রী বলেন, “বিদ্যুৎ উৎপাদনের জ্বালানি মিশ্রণে আরও ভিন্নতা আনা প্রয়োজন। জমির স্বল্পতার জন্য সৌর বিদ্যুৎ ব্যাপক হারে উৎপাদন করা যাচ্ছে না। এমন প্রযুক্তি উদ্ভাবন করা প্রয়োজন যাতে সৌরবিদ্যুৎ উৎপাদনে স্বল্প জমি লাগে।

“জ্বালানি হিসেবে হাইড্রোজেন নিয়ে উন্নত বিশ্ব কাজ করছে। বায়ু থেকে বিদ্যুৎ, সোলার রুফটপ, ওশান এনার্জি নিয়েও নতুন করে ভাবার সময় এসেছে। এসব কাজে গবেষণার জন্য প্রয়োজনে অর্থায়নও করা যাবে।”

ইজিসিবির নির্বাহী প্রকৌশলী নাজমুল আলম বলেন, ফেনীর সোনাগাজীতে এক হাজার একর অনাবাদি জমি অধিগ্রহণ করা হয়েছে নতুন এ প্রকল্পের জন্য।

সবগুলো চুক্তি শেষ করার পাশাপাশি সমীক্ষা চালাতে আরও ছয় মাস সময় প্রয়োজন হবে। তারপর খুব অল্প সময়ের মধ্যে এ বিদ্যুৎকেন্দ্র নির্মাণ করা হবে।

বর্তমানে সারাদেশে ১২৯ মেগাওয়াট সৌর বিদ্যুৎ উৎপাদনের সক্ষমতা রয়েছে। নতুন বিদ্যুৎকেন্দ্রটি নির্মাণ করা হলে এটা হবে এককভাবে দেশের সর্ববৃহৎ সৌর বিদ্যুৎকেন্দ্র।

ইজিসিবি জানিয়েছে, সেখানে পর্যায়ক্রমে ২৫০ মেগাওয়াট সৌর এবং ২০ মেগাওয়াট বায়ুচালিত বিদ্যুৎকেন্দ্র নির্মাণ করা হবে।

 

ফেনীর ওই এলাকায় ইতোমধ্যে ৫০ মেগাওয়াট ক্ষমতার একটি সৌর বিদ্যুৎকেন্দ্র নির্মাণের কাজ শুরু করেছে ইজিসিবি।

দেশের বিভিন্ন স্থানে ইজিসিবির ইউনিটগুলোতে মোট ৯৫৪ মেগাওয়াট উৎপাদন সক্ষমতা রয়েছে।

ইজিসিবি বর্তমানে ঢাকার কাছে তিনটি বিদ্যুৎ কেন্দ্র (সিদ্ধিরগঞ্জে ১২০ মেগাওয়াট ক্ষমতার দুটি পিকিং পাওয়ার প্ল্যান্ট, হরিপুর ৪১২ মেগাওয়াট কম্বাইন্ড সাইকেল পাওয়ার প্ল্যান্ট, সিদ্ধিরগঞ্জে ৩৩৫ মেগাওয়াট কম্বাইন্ড সাইকেল পাওয়ার প্ল্যান্ট) পরিচালনা করছে।

আর মারুবেনি কর্পোরেশন বর্তমানে ১৯টি দেশে প্রায় ১২ গিগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদন করছে।