ফেনীতে প্রত্যয় এন্টারপ্রাইজের মালিক আলাউদ্দিন খোন্দকার জুয়েলের ১৫ এপ্রিল মোটর সাইকেল থেকে ৬লক্ষ এক হাজার ৫শ টাকাসহ একটি ব্যাগ হারিয়ে যায়। পরবর্তীতে ফেনী শহর পুলিশ ফাঁড়িতে থাকা সিসি ক্যামেরার ফুটেজ দেখে দেখে উক্ত ব্যাগটি উদ্ধার করা হয় বলে জানিয়েছেন শহর পুলিশ ফাঁড়ির ওসি সুদ্বিপ রায় পলাশ।

উক্ত বিষয়ে শহর পুলিশ ফাঁড়ির আইডি থেকে একটি স্ট্যাস্টাস দেওয়া হয়। স্ট্যাস্টাসটি হুবহু তুলে ধরা হলো।

হারানো ৬,০১,৫০০/ (ছয় লক্ষ এক হাজার পাঁচশত) টাকা উদ্ধার পূর্বক মালিককে প্রদান।
ফেনী জেলার মাননীয় সুযোগ্য পুলিশ সুপার জনাব খোন্দকার নূরুন্নবী (বিপিএম,পিপিএম) মহোদয়ের বিশেষ দিক নির্দেশনায়,অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন),অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল), সহকারী পুলিশ সুপার (ডি.এস বি), অফিসার ইনচার্জ, ফেনী মডেল থানার সার্বিক তত্বাবধানে শহর পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ জনাব সুদ্বীপ রায় ও এস,আই মেঃ মশিউর রহমান সঙ্গীয় অফিসার ও ফোর্সের সহযোগিতায় শহর পুলিশ ফাঁড়ি, জেলা পুলিশ কন্ট্রোল রুম ও কয়েকটি দোকানের সি সি ক্যামেরা ফুটেজের মাধ্যমে বড় বাজারের প্রত্যয় এন্টারপ্রাইজের গতকাল ১৫/০৪/২০২১ ইং তারিখ মোটরসাইকেল থেকে হারানো টাকার ব্যাগটি উদ্ধার পূ্র্বক অদ্য ১৬/০৪/২০২১ ইং ব্যাগে থাকা নগদ ৬,০১,৫০০/- টাকা প্রত্যয় এন্টারপ্রাইজের মালিকপক্ষ আলাউদ্দিন খোন্দকার জুয়েলকে বুঝিয়ে দেন।
বিস্তারিতঃ
গত ১৫/০৪/২০২১ ইং বেলা ০৩.৪০ ঘটিকার সময় বড় বাজারের প্রত্যয় এন্টারপ্রাইজের আলাউদ্দিন খোন্দকার জুয়েলের মোটর সাইকেলে থাকা টাকার ব্যাগটি দোকান হইতে বাসায় যাবার পথে শহীদ শহীদুল্লাহ্ কায়সার সড়কে ছিড়ে পড়ে যায়। তিনি খোঁজাখুঁজি করিয়া টাকার ব্যাগটি না পাওয়ায়,ফেনী মডেল থানায় জিডি নং ৭৬০ তারিখ ১৫/০৪/২০২১ ইং এন্ট্রি করেন।পরবর্তীতে সি সি ক্যামেরা ফুটেজে দেখা যায় রাস্তায় পড়ে যাওয়া টাকার ব্যাগটি একটি লোক তুলে নেন। সিসি ক্যামেরা ফুটেজ ও আলাউদ্দিন খোন্দকার জুয়েলসহ তার লোকদের সহযোগিতায় গতকাল রাতেই ধর্মপুর ইউনিয়নের জোয়াড় কাছাড় গ্রামের মোঃ বেলাল হোসেনের কাছ থেকে হারনো টাকার ব্যাগটি শহর পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ পুলিশ পরিদর্শক জনাব সুদ্বীপ রায় ও এস আই মোঃ মশিউর রহমান বুঝে নেন। মোঃ বেলাল হোসেন টাকার ব্যাগটি পাওয়ার পর কয়েকজনকে জানান এবং তিনি থানাকে জানানোর জন্য প্রস্তুতিও নিতেছিলেন, এর পূর্বেই শহর পুলিশ ফাঁড়ি ফেনীর পুলিশ মোঃ বেলাল হোসেনের বাড়িতে পৌঁছে যায়।