নিজস্ব প্রতিনিধিঃ- 

 

ফেনীর ছাগলনাইয়া পৌরসভার ২ নং ওয়ার্ড দক্ষিণ সতর গ্রামের ফুলতলী পাড়া ও মৌলভীপাড়ার সংযোগ সেতুটির বেহাল দশা দেখার যেন কেউনেই।

গতকাল বুধবার (২৩ জুন) সকালে আমাদের নিজস্ব প্রতিনিধি সরেজমিনে গিয়ে দেখতে পায় সেতুটির প্রকৃত অবস্থা। এলাকাবাসী ও সমাজ সেবক মোরর্শেদ চৌধুরী, একরাম মোচ্ছেদী, মজিবুল হক, কামাল উদ্দিন, মুলকুতের রহমান ও মাওলানা বাহা উদ্দীন (বড় হুজুর সোলতান মাওলানার ছেলে) জানান, বাংলাদেশ পানি উন্নয়ন বোর্ডের খাল কাটা কর্মসূচিতে গত দুই বছর আগে ছাগলনাইয়ার ঐতিহাসিক এই ফুলছড়ী খাল ও খনন করা হয়। বর্তমানে খালের দক্ষিণ পার্শে ভাঙ্গণের ফলে এবং ব্রীজের গোড়ার মাটি কাটার ফলে ব্রীজটি ভেঙ্গে পড়েছে। সেতুটির দক্ষিণ পার্শে রয়েছে দক্ষিণ সতর উচ্চ বিদ্যালয় এবং উত্তর পার্শে রয়েছে দক্ষিণ সতর নুরুল কোরান হাফেজিয়া মাদ্রাসা ও এতিমখানা এবং রাস্তা টি সংযোগ হয়েছে চাঁদগাজী বাজার ও মির্জা বাজার। রয়েছে মির্জা বাজার ইসলামীয়া দাখিল মাদ্রাসা, চাঁদগাজী স্কুল এন্ড কলেজ।

এই রাস্তাটা দিয়ে প্রতিদিন শত শত ছাত্র /ছাত্রী চলাচল করে। বর্তমানে সেতুটির যে অবস্থা তাতে যে কোন মুহূর্তে আসতে পারে মৃত্যুর খবর। ঘটতে পারে ছাগলনাইয়ার কুহুমা শান্তির হাটের লক্ষিপুর গ্রামের মারজানার মত অকাল মৃত্যু। এলাকা বাসীর দাবী ব্রীজের কাজ না হওয়া পর্যন্ত যদি পৌরসভার থেকে কিছু বরাদ্দ দিয়ে লোহার পাত বসিয়ে দেওয়া হয় তবে হয়ত দুর্ঘটনা থেকে সাময়িক ভাবে রক্ষা পেতে পারে।

এ ব্যাপারে ২নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর মেহেদী হাছান চৌধুরী শিমুলের কাছে টেলিফোনে আলাফ করতে চাইলে তার মুঠোফোন টি বন্ধ পাওয়া যায়।

তবে এ বিষয়ে পৌর মেয়র এম মোস্তফার কাছে জানতে চাইলে তিনি জানান, আমি রাস্তা টি সহ ব্রীজের কাজের জন্য পাইল জমা করেছি। তবে এলাকা বাসী যদি লিখিত একটি অভিযোগ দে তাহলে রাস্তা টা পৌরসভার থেকে কিছু বরাদ্দ দিয়ে চলাচলের উপযোগী করে দিবো।