সাভার থেকে সচেতন এক নাগরিক গত ২০ এপ্রিল ২০২১ খ্রি. ইনবক্স করেছেন বাংলাদেশ পুলিশকে।

তিনি জানিয়েছেন, সাভার উপজেলা হেলথ কমপ্লেক্স এর দক্ষিণ পাশে দীর্ঘদিন ধরে কিছু গাড়ি ফেলে রাখা হয়েছে। বেশ কিছুদিন ধরে কিছু উচ্ছৃঙ্খল ছেলে এখানে দিন ও রাতের বিভিন্ন সময় পরিত্যক্ত গাড়িগুলোর ভিতরে বসে আড্ডা দেয়। এদের বেশিরভাগই মাদকাসক্ত। পাশে রাস্তা দিয়ে কোনো নারী বা মেয়ে মানুষ হেঁটে গেলে তারা নোংরা ও অশালীন ভাষায় উত্যক্ত করে। এছাড়া, গাড়িগুলোর বিভিন্ন যন্ত্রাংশ চুরি করে তা বিক্রি করে ফেলছে।

এদের এ সকল কাজের প্রতিবাদ করতে গিয়ে অনেককেই নাজেহাল হতে হয়েছে। এ বিষয়টি অবগত হওয়ার পরপরই বাংলাদেশ পুলিশের মিডিয়া এন্ড পাবলিক রিলেশন্স উইং সাভার মডেল থানার ওসি এএফএম সায়েদকে নির্দেশনা প্রদান করে এ বিষয়ে দ্রুত পদক্ষেপ নেয়ার জন্য। তারই পরিপ্রেক্ষিতে গত দুইদিনে বিভিন্ন স্টেইক হোল্ডারদের সাথে যোগাযোগ করে এবং সংশ্লিষ্টদের সহযোগিতায় উল্লিখিত স্থান থেকে গাড়িগুলো নিরাপদে সরিয়ে ফেলে সাভার থানা পুলিশ।

জায়গাটি পরিষ্কার করে তা সাধারণ মানুষের চলাচলের উপযুক্ত করা হয়েছে। পুলিশি অভিযানের সংবাদে অভিযুক্তরা বর্তমানে পলাতক রয়েছে। তাদেরকে খুঁজে বের করে শীঘ্রই আইনের আওতায় আনা হবে।

এ বিষয়ে তথ্যদাতা সম্মানিত নাগরিক তাৎক্ষনিক প্রতিক্রিয়ায় জানিয়েছেন, “Dear Sir, Assalamu Alaikum. The complaint I gave you two days ago has been resolved. The in-charge of Savar police station has taken immediate action. All the dumped vehicles were removed this morning. Thank you so much indeed Sir.”